হাইমচরে লঞ্চগুলো নদীর পাড়ে নোঙ্গর করায় পাড় ভেঙে চৌচির

হাইমচর প্রতিনিধি: 

হাইমচরে লঞ্চগুলো নদীর পাড়ে নোঙ্গর করায় পাড় ভেঙে চৌচির । বিআইডবিস্নটিএ থেকে ঘাটগুলো ইজারাও দেয়া হয় প্রতি বছর। কিন্তু একটি ঘাটেও নেই পণ্টুন। ঢাকা-চাঁদপুর-হাইমচর-চরভৈরবী নৌরূটের মেঘনা নদীতে প্রতিদিন দিনে এবং রাতে একাধিক যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল করছে। চারটি লঞ্চঘাটে পণ্টুন না থাকায় যাত্রীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

শুক্রবার দুপুরে হাইমচর উপজেলার ২নং উত্তর আলগী ইউনিয়নের কাটাখালী বাজার লঞ্চঘাট গিয়ে দেখা যায়, ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া লঞ্চগুলো এই ঘাটে নদীর পাড়ে এসে নোঙ্গর করে আছে। কাঠের সিঁড়ি লাগিয়ে যাত্রী ও মালামাল উঠানামা করছে। চরম ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থার মধ্য দিয়ে যাত্রীরা নদীর পাড়ে এসে লঞ্চে উঠতে হয়। ওঠার সময় অনেকে দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন।

এলাকাবাসীর অভিযোগ হাইমচর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে প্রতিদিন হাজার হাজার কর্মজীবী মানুষ নিয়মিত ঢাকা ও চাঁদপুর যাতায়াত করেন। হাইমচরে চারটি লঞ্চঘাটে কোনো ধরনের পণ্টুন না থাকায় লঞ্চগুলো নদীর পাড়ে এসে নোঙ্গর করার কারণে পাড় ভেঙে চৌচির হয়ে গেছে। লঞ্চে কাঠের সিঁড়ি দিয়ে ওঠার সময় যাত্রীরা অনেকে দুর্ঘটনা কবলিত হচ্ছেন।

জনপ্রিয় খবর

সর্বশেষ খবর

দিনপঞ্জিকা

February 2021
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728

আর্কাইভস