হাইমচর উপজেলার চরভৈরবী ইউনিয়নে রোল দিয়ে মেরে গাছের সাথে বেঁধে অমানবিক নির্যাতন

নিজস্ব প্রতিনিধি:

হাইমচর উপজেলার চরভৈরবী ইউনিয়নের উত্তর পাড়া বগুলা গ্রামের মৃত সরদার নোয়াব আলীর ছেলে, ৫৪নং উত্তর পাড়া বগুলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. মকবুল হোসেন (রুবেল)-এর তার বড় ভাই মো. মফিজুর রহমানের সাথে পৈত্রিক সম্পত্তি নিয়ে ঝগড়া লাগে। মফিজুর রহমান এক পর্যায় মকবুল হোসেনকে মেরে গাছের সাথে বেঁধে রাখে।

হাইমচর থানায় ৭ জনের বিরুদ্ধে এনিয়ে মকবুল হোসেন একটি অভিযোগ দায়ের করেন। ৯ আগস্ট অমানবিক নির্যাতনের ঘটনাটি ঘটে। উপজেলার পাড়া বগুলা গ্রামে দীর্ঘ ১০ বছর ধরে মফিজ মাস্টার ও তার ছোট ভাই মকবুল মাস্টারের পৈত্রিক সম্পত্তি নিয়ে বিরোধ চলছে। মফিজুর রহমান ও তার লোকজন মকবুল মাস্টারকে রোল দিয়ে মেরে গাছের সাথে বেঁধে রেখে।

এ ব্যাপারে মকবুল হোসেন বলেন, আমার ভাই আমাকে আমার পৈত্রিক বাড়ি থেকে জোরপূর্বক বের করে দিতে চেষ্টা করে আসছে। আমার পরিবারের উপর নির্যাতন করার সময় আমি বাধা দিলে আমাকে মারধর করে। আমাকে মফিজ মাস্টার মেরে রশি দিয়ে গাছের সাথে বেঁধে রাখলে এলাকার লোকজন আমাকে উদ্ধারে সহায়তা করেন। আমি প্রশাসনের কাছে এর বিচার চাই।

জনপ্রিয় খবর

সর্বশেষ খবর

দিনপঞ্জিকা

September 2020
M T W T F S S
« Aug    
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930  

আর্কাইভস